• header_en
  • header_bn

 

Corruption increases poverty and injustice. Let's fight it together...now

 

টিআইবি’র আয়োজনে নারী উপজেলা নির্বাহী অফিসারদের অংশগ্রহণে এসডিজি বিষয়ক কর্মশালা অনুষ্ঠিত

সংবাদ বিজ্ঞপ্তি
 
টিআইবি’র আয়োজনে নারী উপজেলা নির্বাহী অফিসারদের অংশগ্রহণে এসডিজি বিষয়ক কর্মশালা অনুষ্ঠিত
 
ঢাকা, ১ মার্চ ২০১৮: নারীর উন্নয়ন আর ক্ষমতায়নের সাথে সুশাসন প্রতিষ্ঠার নিবিড় সম্পৃক্ততা বিবেচনায় জাতিসংঘ ঘোষিত টেকসই উন্নয়ন লক্ষ্যমাত্রার জেন্ডার বিষয়ক লক্ষ্য ৫ ও সুশাসন বিষয়ক লক্ষ্য ১৬ বাস্তবায়নে নারী উপজেলা নির্বাহী অফিসারবৃন্দের (ইউএনও) অংশগ্রহণে ট্রান্সপারেন্সি ইন্টারন্যাশনাল বাংলাদেশ (টিআইবি)’র উদ্যোগে আজ এক কর্মশালার আয়োজন করা হয়। আন্তর্জাতিক নারী দিবস ২০১৮ উপলক্ষে আয়োজিত এ কর্মশালায় নারীর অধিকার ও ক্ষমতায়ন প্রক্রিয়ায় সুশাসন নিশ্চিতে উপজেলা পর্যায়ে প্রয়োগযোগ্য উদ্ভাবনী পরিকল্পনা প্রণয়ণের উদ্দেশ্যে টিআইবি’র ধানমন্ডিস্থ কার্যালয়ের মেঘমালা সম্মেলন কক্ষে সমবেত হন ১৫ জন নারী উপজেলা নির্বাহী অফিসারবৃন্দ (ইউএনও)। 
‘টেকসই উন্নয়ন লক্ষ্যমাত্রা, সুশাসন ও নারী’ শীর্ষক এ কর্মশালায় মন্ত্রিপরিষদ বিভাগের অনুমোদনক্রমে দেশের বিভিন্ন প্রশাসনিক বিভাগের পনেরটি উপজেলার পনেরজন নারী উপজেলা নির্বাহী অফিসার অংশগ্রহণ করেন। উপজেলাগুলো হল: মুক্তাগাছা, ময়মনসিংহ; ঝিনাইগাতী, শেরপুর; সিলেট সদর, সিলেট; ভান্ডারিয়া ও কাউখালী, পিরোজপুর; লোহাগড়া, নড়াইল; বাঘারপাড়া, যশোর; বেলাব, নরসিংদী; জাজিরা, শরীয়তপুর; মেঘনা, কুমিল্লা; মতলব উত্তর, চাঁদপুর; বাগাতিপাড়া, নাটোর; নাটোর সদর, নাটোর; ডিমলা, নীলফামারী; এবং লালমনিরহাট সদর, লালমনিরহাট
কর্মশালায় নারী উপজেলা নির্বাহী অফিসারবৃন্দকে স্বাগত জানিয়ে টিআইবি’র নির্বাহী পরিচালক ড. ইফতেখারুজ্জামান বলেন, টেকসই লক্ষ্যমাত্রার অভীস্ট ৫ ও ১৬ এর সাথে সরকারের ভিশন ২০২১ ও সপ্তম পঞ্চবার্ষিকী পরিকল্পনার মাঝে নিবিড় আন্তঃসম্পর্ক রয়েছে। সরকারের উন্নয়ন পরিকল্পনার বাস্তবায়নে মাঠপর্যায়ে নারী হিসেবে কাজ করতে গিয়ে নানাবিধ চ্যালেঞ্জ ও সুযোগ-সবিধার অপ্রতুলতার পরও নারী কর্মকর্তা হিসেবে উল্লেখযোগ্য সাহসিকতা ও সফলতার জন্য ড. জামান তাদেরকে অভিনন্দন জানান। নারীর ক্ষমতায়ন এবং সিদ্ধান্ত গ্রহণ প্রক্রিয়ায় নারীদের অংশগ্রহণ বৃদ্ধি সর্বোপরি সুশাসন প্রতিষ্ঠায় অন্তর্ভুক্তিমূলক অগ্রগতি অর্জন করতে হলে কেন্দ্র থেকে তৃণমূল পর্যন্ত সকল পর্যায়ে নারী-পুরুষ সমতার দৃষ্টিকোণ থেকে কার্যক্রম পরিচালনা করার কোন বিকল্প নেই উল্লেখ করে ড. জামান নারীদের উজ্জীবিত, অনুপ্রানিত, সংগঠিত এবং ক্ষমতায়িত করার ক্ষেত্রে নারী উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তাগণ গুরুত্বপূর্ন ভূমিকা পালনের আহবান জানান। কর্মশালার পরিচিতি পর্বে আরো উপস্থিত ছিলেন টিআইবি’র উপদেষ্টা - নির্বাহী ব্যবস্থাপনা অধ্যাপক ড. সুমাইয়া খায়ের। 
‘টেকসই উন্নয়ন লক্ষ্যমাত্রা, সুশাসন ও নারী’ বিষয়ে উপস্থাপনা করেন টিআইবি’র আউটরিচ অ্যান্ড কমিউনিকেশন বিভাগের পরিচালক ড. রিজওয়ান-উল-আলম। এছাড়া টেকসই উন্নয়ন নিশ্চিতে অন্তর্ভুক্তিমূলক কৌশলের ওপর অধিবেশন পরিচালনা করেন বিশিষ্ট মানবাধিকারকর্মী অ্যাডভোকেট ইউ. এম. হাবিবুন নেসা। এরপর ‘নারী অধিকার ও ক্ষমতায়ন প্রক্রিয়ায় সুশাসন: উপজেলা পর্যায়ে করণীয়’ বিষয়ের ওপর অংশগ্রহণকারী নারী কর্মকর্তাবৃন্দ দলগত কাজে অংশগ্রহণ করেন। বিকেলে সমাপনী পর্বে অংশগ্রহণকারীদের মধ্যে সনদপত্র বিতরণ করেন ড. ইফতেখারুজ্জামান।
এবারের আন্তর্জাতিক নারী দিবসে টিআইবি’র প্রতিপাদ্য ‘টেকসই উন্নয়ন ও সুশাসন: চাই ক্ষমতায়িত নারী, জাগ্রত বিবেক’। দিবসটি উদ্যাপন উপলক্ষে টিআইবি’র উদ্যোগে ঢাকায় নারী উপজেলা নির্বাহী অফিসারদের নিয়ে কর্মশালা আয়োজনের পাশাপাশি দেশের বিভিন্ন বিশ^বিদ্যালয় থেকে মোট ৩২টি দলের অংশগ্রহণে আগামী ৩-৪ মার্চ দু’দিনব্যাপী জাতীয় বিতর্ক প্রতিযোগিতার আয়োজন করা হয়েছে। এছাড়া স্থানীয় পর্যায়ে টিআইবি’র অনুপ্রেরণায় দেশের ৪৫টি অঞ্চলে গঠিত সচেতন নাগরিক কমিটি (সনাক) বিভিন্ন প্রচারণামূলক কার্যক্রম যেমন- স্থানীয় পর্যায়ে র‌্যালি, পথনাটক, সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান, আলোচনা সভা এবং জাতীয় পর্যায়ে তরুণদের মাঝে সচেতনতা সৃষ্টির লক্ষ্যে তরুণদের নিয়ে দক্ষতা উন্নয়নমূলক অনুষ্ঠানের আয়োজন করেছে।   
 
গণমাধ্যম যোগাযোগ:
 
রিজওয়ান-উল-আলম 
পরিচালক (আউটরিচ অ্যান্ড কমিউনিকেশন)
ফোন: ০১৭১৩ ০৬৫০১২ 
ই-মেইল:  This email address is being protected from spambots. You need JavaScript enabled to view it.