• header_en
  • header_bn

 

Corruption increases poverty and injustice. Let's fight it together...now

 

‘দুর্নীতির বিরুদ্ধে একসাথে ’ প্রতিপাদ্যে ৯ ডিসেম্বর আন্তর্জাতিক দুর্নীতিবিরোধী দিবস উপলক্ষে টিআইবি’র বিভিন্ন কার্যক্রম

ঢাকা, ৭ ডিসেম্বর ২০১৬: ৯ ডিসেম্বর জাতিসংঘ ঘোষিত আন্তর্জাতিক দুর্নীতিবিরোধী দিবস উপলক্ষে ‘দুর্নীতির বিরুদ্ধে একসাথে’ এই প্রতিপাদ্যে প্রতিবছরের মত বিভিন্ন কার্যক্রমের মধ্য দিয়ে এ বছরও দিবসটি উদ্যাপন করছে টিআইবি। বিভিন্ন কর্মসূচির মধ্যে মানববন্ধন, টিআইবি’র অনুপ্রেরণায় গঠিত তরুণদের প্লাটফর্ম ‘ইয়ুথ এনগেইজমেন্ট অ্যান্ড সাপোর্ট’ (ইয়েস) এবং ইয়েস ফ্রেন্ডস সদস্যদের দুর্নীতিবিরোধী সামাজিক আন্দোলনে সক্রিয় ভূমিকার জন্য অনুপ্রেরণা পুরস্কার, দুর্নীতিবিরোধী কার্টুন ও আলোকচিত্র প্রতিযোগিতা ও প্রদর্শনী, দুর্নীতিবিরোধী রচনা প্রতিযোগিতা ও বক্তৃতা প্রতিযোগিতা উল্লেখযোগ্য।
দিবসটি উদযাপন উপলক্ষে আগামীকাল ৮ ডিসেম্বর সকাল ১০.৩০ টায় ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রীয় শহীদ মিনার প্রাঙ্গনে এক মানববন্ধনের আয়োজন করা হয়েছে। এতে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থাকবেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. . . . . আরেফিন সিদ্দিক, টিআইবি’র নির্বাহী পরিচালক ড. ইফতেখারুজ্জামান ছাড়াও টিআইবি’র অনুপ্রেরণায় সারাদেশের সচেতন নাগরিক কমিটির ইয়েস ও ইয়েস ফ্রেন্ডস সদস্য, ঢাকার বিভিন্ন সরকারি ও বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ে গঠিত ইয়েস গ্রুপের সদস্য এবং সমমনা সংগঠনের প্রতিনিধিবৃন্দ অংশগ্রহণ করবেন।
একই দিন বাংলাদেশ শিশু একাডেমী মিলনায়তনে ‘দুর্জয় তারুণ্য, দুর্নীতির বিরুদ্ধে একসাথে’ এই প্রতিপাদ্যে ইয়েস এবং ইয়েস ফ্রেন্ডস সদস্যদের জন্য অনুপ্রেরণা পুরস্কার প্রদান করা হবে। পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠানে মূখ্য আলোচক হিসেবে উপস্থিত থাকবেন বিশিষ্ট কথা সাহিত্যিক ও টিআইবি’র ট্রাস্টি বোর্ডের মহাসচিব সেলিনা হোসেন এবং সভাপতিত্ব করবেন টিআইবি’র ট্রাস্টি বোর্ডের চেয়ারপারসন এডভোকেট সুলতানা কামাল।
৮ ডিসেম্বর বিকেল ৪টায় ধানমন্ডিস্থ দৃক গ্যালারিতে অনুষ্ঠিত হবে দুর্নীতিবিরোধী কার্টুন ও আলোকচিত্র প্রতিযোগিতা ২০১৬ এর বিজয়ী কার্টুনিস্টদের পুরস্কার প্রদান ও সপ্তাহব্যাপি প্রদর্শনী’র উদ্বোধন। অনুষ্ঠানে সম্মানিত অতিথি হিসেবে উপস্থিত থাকবেন বাংলাদেশে নিযুক্ত সুইডেনের রাষ্ট্রদূত জোহান ফ্রিসেল। উল্লেখ্য, প্রদর্শনীটি ১৫ ডিসেম্বর পর্যন্ত (বিকাল ৩টা থেকে রাত ৮টা) সকলের জন্য উম্মুক্ত থাকবে। এছাড়াও দিবসটি উদযাপন উপলক্ষে ৮ ডিসেম্বর ঢাকাসহ দেশের ৮টি বিভাগীয় শহরে দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক) এর সাথে যৌথভাবে হিলিয়াম বেলুনের মাধ্যমে দুর্নীতিবিরোধী বার্তা প্রচার করা হবে। একই সাথে আগামী ১১ ডিসেম্বর থেকে তিন মাসের জন্য ঢাকার বিভিন্ন সড়কে ছয়টি বাসের মাধ্যমে দুর্নীতিবিরোধী বার্তা প্রচার করা হবে।
জাতিসংঘের উদ্যোগে ২০০৩ সালের ৩১ অক্টোবর ‘দুর্নীতিবিরোধী সনদ’ (United Nations Convention Against Corruption (UNCAC) গৃহীত হয়। সেই বছর ৯ ডিসেম্বর মেক্সিকোর মেরিডাতে অনুষ্ঠিত জাতিসংঘের সাধারণ অধিবেশনে অংশ নেওয়া ১২৯টি দেশের মধ্যে ৮৭টি দেশ সনদটিতে স্বাক্ষর প্রদান করে। স্বাক্ষরের দিনটি স্মরণীয় করে রাখতে ও বিশ্বব্যাপী দুর্নীতিবিরোধী আন্দোলনের পক্ষে জনসচেতনতা তৈরির জন্য জাতিসংঘ ৯ ডিসেম্বরকে ‘আন্তর্জাতিক দুর্নীতিবিরোধী দিবস’ হিসেবে ঘোষণা করে। এ লক্ষ্যে ২০০৪ সাল থেকে বাংলাদেশসহ বিশ্বের বিভিন্ন দেশে ৯ ডিসেম্বর আন্তর্জাতিক দুর্নীতিবিরোধী দিবস উদ্যাপিত হয়ে আসছে। এ বছর টিআইবি দেশব্যাপি দুর্নীতিবিরোধী সামাজিক আন্দোলন পরিচালনার বিশ বছর পূর্তি উদ্যাপন করছে। ‘দুর্নীতির বিরুদ্ধে একসাথে’ শ্লোগান নিয়ে ৯ ডিসেম্বর, আন্তর্জাতিক দুর্নীতিবিরোধী দিবস ২০১৬ উদযাপনের মূল উদ্দেশ্য হলো দুর্নীতি প্রতিরোধে সরকারি-বেসরকারি সকলের দায়িত্বশীল ভূমিকা পালন সম্পর্কে অংশীজনকে সচেতন ও উৎসাহিত করা।
এছাড়াও দিবসটি উদ্যাপন উপলক্ষে দেশের ৪৫টি এলাকায় টিআইবি’র অনুপ্রেরণায় গঠিত সচেতন নাগরিক কমিটি (সনাক) ও ইয়েস সদস্যদের সহযোগিতায় মানববন্ধন, র‌্যালি, রচনা, বিতর্ক ও চিত্রাঙ্কন প্রতিযোগিতা, কার্টুন ও আলোকচিত্র প্রদর্শনী, আলোচনা অনুষ্ঠান, তথ্য ও পরামর্শ ডেস্ক, তথ্য মেলা, সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান, দুর্নীতিবিরোধী ভিডিও নাটক এবং শপথ গ্রহণসহ বিভিন্ন কার্যক্রম গ্রহণ করা হয়েছে। 

Media Contact